গুগল ট্রান্সলেট বাংলা টু ইংলিশ করুন সহজেই

5/5 - (2 votes)

গুগল ট্রান্সলেট বাংলা টু ইংলিশ: বর্তমান যুগ হলো আধুনিক যুগ এই যুগে পুরো পৃথিবী একটি গ্রামের মতো ধারণা করা হয় যোগাযোগ প্রযুক্তির কল্যাণে। আমরা খুব দ্রুত এক প্রান্ত থেকে অন্য প্রান্তের মানুষের সাথে যোগাযোগ করতে পারি।

কিন্তু আমাদের এই যোগাযোগের মধ্যে বাঁধা হয়ে দাড়িয়েছে যেন ভাষা। যদিও ইংরেজিকে ধরা হয় আন্তর্জাতিক ভাষা কিন্তু আমাদের অনেকেরই রয়েছে ইংরেজির প্রতি জড়তা। তাহলে আমরা কি যোগাযোগের এই প্রযুক্তি ব্যবহার করতে পারব না?

অবশ্যই পারবেন কেন পারবেন না? আমরা খুব সহজে অন্য ভাষা বুঝতে পারার জন্যও রয়েছে অত্যাধুনিক প্রযুক্তি। চলুন আজকে তেমনি একটি প্রযুক্তি নিয়ে কথা বলব৷

গুগল ট্রান্সলেট বাংলা টু ইংলিশ
গুগল ট্রান্সলেট বাংলা টু ইংলিশ

আমাদের আজকে কথা গুগল ট্রান্সলেটর নিয়ে। এটি এমন একটি সফটওয়্যার যার মাধ্যমে আপনি পৃথিবীর যেকোন ভাষা আপনার নিজের মাতৃভাষায় ট্রান্সলেট করতে পারবেন। যেমন :-  গুগল ট্রান্সলেট বাংলা টু ইংলিশ, bangla to hindi translate, bangla to english translate, bangla to urdu translate যেকোন কিছু করতে পারবেন।

তাছাড়াও যারা গুগল ট্রান্সলেট বাংলা টু ইংলিশ app, গুগল ট্রান্সলেট বাংলা টু ইংলিশ, গুগল ট্রান্সলেট ইংলিশ টু বাংলা সফটওয়্যার ফ্রি ডাউনলোড, বাংলা টু ইংরেজি ট্রান্সলেশন app, Translate Bengali to English, কিভাবে সহজে অনুবাদ করব, গুগল ট্রান্সলেট বাংলা টু ইংরেজি, ইত্যাদি গুগল ট্রান্সলেট সর্ম্পকিত প্রশ্ন গুগলে করে থাকেন, তারা এই পোস্টের মাধ্যম সকল উত্তর পেয়ে যাবেন ইনশাল্লাহ।

আর সবচেয়ে মজার একটি বিষয় হলো একটি গুগলের একটি নিজস্ব প্রোডাক্ট এবং এই অত্যাধুনিক প্রযুক্তিটি আপনি সম্পূর্ণ বিনামূল্যে ব্যবহার করতে পারবেন৷ গুগল ট্রান্সলেটরের নিজস্ব ওয়েবসাইট এবং এপ আছে।

আপনি যেখানে ইচ্ছে সেখানে এটি ব্যবহার করতে পারবেন। আপনি খুঁজে দেখলে এমন শত শত সফটওয়্যার পাবেন তবে গুগল ট্রান্সলেটর সবচেয়ে নিখুঁত ভাবে কাজ করতে পারে এটি অনেক জনপ্রিয়।

আমাদের ওয়েবসাইটে আরও পোস্ট:



তাহলে চলুন জেনে আসি গুগল ট্রান্সলেটর কি? গুগল ট্রান্সলেটর কিভাবে ব্যবহার করবেন এ সম্পর্কে বিস্তারিত।

গুগল ট্রান্সলেটর কি? (What is Google Translator)

গুগল সম্পর্কে আমরা সবাই কম বেশি জানি। বর্তমান বিশ্বের অন্যতম একটি টেক কোম্পানি। গুগলের অনে অনেক প্রডাক্ট আছে তার মধ্যে একটি প্রোডাক্ট হলো গুগোল ট্রান্সলেটর। এটি গুগলের নিজস্ব প্রোডাক্ট যা তাদের ইউজাররা বিনামূল্যে ব্যবহার করতে পারবে।

এই গুগল ট্রান্সলেটর মেইনলি একটি টেকনোলজি যার মাধ্যমে আপনি পৃথিবীর সব ভাষাকে আপনার নিজের মাতৃভাষায় ভাষায় কনভার্ট করতে পারবেন৷

চলুন একটি উদাহরণ দিয়ে বিষয়টি বুঝি, আপনি মনে করুন একটি ব্যবসা করেন। ইন্টারন্যাশনাল বিজনেস মানে সারা বিশ্বেই আপনার ক্লায়েন্ট আছে৷ এখন আপনাকে জার্মানি থেকে একজন মেসেজ দিলে। সে জার্মান ভাষায় আপনার পণ্য নিয়ে আপনাকে কিছু বলতে চেয়েছে। কিন্তু আপনি তো জার্মান ভাষা বোঝেন না তাহলে আপনি কি করবেন?

এক্ষেত্রে আপনি খুব সহজে জার্মান ভাষাটিকে গুগল ট্রান্সলেটরের মাধ্যমে অনুবাদ করে বাংলায় কনভার্ট করে নিতে পারবেন। এবং তার জন্য আপনাকে অনেক কিছু জানতে হবে তা না সিম্পল কপি পেস্টের মাধ্যমে আপনি জার্মান ভাষা থেকে বাংলা ভাষায় কনভার্ট করে নিতে পারবেন।

কেন গুগল ট্রান্সলেটর ব্যবহার করবেন?/গুগল ট্রান্সলেট বাংলা টু ইংলিশ

আগে যখন আমরা কোন অপরিচিত শব্দ পেতাম তখন তার অর্থ অনুসন্ধানের জন্য বিশাল বড় বড় অভিধান বা ডিকশনারিতে খোঁজা লাগত। কিন্তু এখন কালের বিবর্তনে সেই দিন আর নেই। গুগল ট্রান্সলেটর ব্যবহার করে আপনি সহজেই যেকঁন জটিল শব্দের অর্থ খুজে বের করতে পারবেন যা আপনার প্রচুর সময় বাঁচিয়ে ফেলবে।

আগে অন্য কোন দেশ ভ্রমণের জন্য সে দেশের ভাষা আগে আয়ত্ত করতে হতো। তার জন্য যেতে হতো ট্রেনিং সেন্টারে তারপর উক্ত দেশের ভাষা আয়ত্ত করেই আপনি সে দেশে ভ্রমণ করতে পারতেন কিন্তু এখন গুগল ট্রান্সলেটর ব্যবহার করে আপনি খুব সহজেই যেকোন ভাষায় আপনার মনোভাব প্রকাশ করতে পারবেন।

শুধু মাত্র লিখে বা টাইপ করে নয় আপনি ভয়েস দিয়েও যেকোন ভাষার অনুবাদ তরতে পারেন যার ফলে আপনি বেঁচে যাবেন অনেক কঠিন ভাষা আয়ত্ত করার কষ্ট থেকে।

উপরোক্ত কারণগুলোর জন্য আপনার গুগল ট্রান্সলেটর ব্যবহার করা উচিত। এটি ব্যবহারের মাধ্যমে আপনার সময় এবং শ্রম দুটিই বেঁচে যাবে। এবার জেনে আসি কিভাবে আপনি গুগল ট্রান্সলেটর ব্যবহার করবেন।

আরও পোস্ট দেখতে পারেন:

কিভাবে গুগল ট্রান্সলেটর ব্যবহার করবেন?/গুগল ট্রান্সলেট বাংলা টু ইংলিশ

গুগল ট্রান্সলেটরের অনেক অনেক উপকারীতা আছে৷ কিন্তু এটি থেকে আপনি তখনই উপকৃত হবেন যখন আপনি সঠিক ভাবে এটি ব্যবহার করতে পারবেন। যদি আপনার এটি ব্যবহারবিধিই না জানেন তাহলে এটি থেকে আপনি একটুও উপকৃত হতে পারবেন না।

আমরা আমাদের আগের আলোচনায় জেনে এসেছি গুগল ট্রান্সলেটর কি, কেন গুগল ট্রান্সলেটর ব্যবহার করবেন।

চলুন এবার জেনে নিই কিভাবে গুগল ট্রান্সলেটর ব্যবহার করবেন।
গুগল ট্রান্সলেটর ৩টি উপায়ে ব্যবহার করা যায়।
১) গুগল সার্চের মাধ্যমে।
২) ওয়েবসাইটের মাধ্যমে।
৩) অ্যাপস এর মাধ্যমে।

চলুন আরেকটু বিস্তারিত ভাবে বিষয়টি আপনাদের ব্যাখ্যা করি৷

গুগল সার্চের মাধ্যমে:-

গুগল সার্চের মাধ্যমে ট্রান্সলেটর ব্যবহার করতে আপনাকে কোন ওয়েবসাইট বা এপ ইনস্টল করতে হবে না। আপনি সরাসরি গুগলে সার্চদ দিয়েই ট্রান্সলেশন করতে পারবেন চলুন ধাপ গুলো দেখে নিই।

ধাপ ১:- প্রথমেই google.com এ গিয়ে সার্চ বক্সে লিখতে হবে Google translator।

গুগল ট্রান্সলেট বাংলা টু ইংরেজি
ধাপ ২:- তারপরে আপনি দেখবেন নিচের ছবির মতো দুটি বক্স এসেছে। যার একটিতে লেখা থাকবে Enter text অপর বক্সে লেখা থাকবে Translation।

google translateধাপ ৩:- আপনি যে ভাষাটি ট্রান্সলেট করতে চান তা প্রথম বক্সে সিলেক্ট করবেন। যে ভাষায় ট্রান্সলেট করতে চান সেটি ২য় বক্সে সিলেক্ট করবেন। যেমন আমি ইংরেজি থেকে বাংলা ভাষায় কনভার্ট করব তাই প্রথম বক্সে ইংরেজি এবং ২য় বক্সে বাংলা সিলেক্ট করব।

google translateধাপ ৪:- এখন প্রথম বক্সে আপনার লেখাটি পেস্ট করলেই তা ট্রান্সলেট হয়ে ২য় বক্সে দেখা যাবে।

google translate

এভাবেই কয়েকটি সহজ ধাপ পার করে আপনি সার্চের মাধ্যমে ট্রান্সলেটর ব্যবহার করতে পারবেন।

ওয়েবসাইটের মাধ্যমে:-
গুগল ট্রান্সলেটরের নিজস্ব ওয়েবসাইটও রয়েছে আপনি চাইলে সহজেই তাদের ওয়েবসাইটে প্রবেশ করেও ট্রান্সলেশন করতে পারেন। চলুন দেখে আসি কিভাবে ওয়েবসাইট থেকে ট্রান্সলেশন করবেন।

ধাপ ১:- প্রথমেই আপনার ব্রাউজারে গিয়ে গুগল ট্রান্সলেটরের অফিশিয়াল ওয়েবসাইট translate.google.com এ যেতে হবে।ধাপ ২:- আপনি নিচের ছবির মতো ইন্টারফেস দেখতে পারবেন। আগের মতো এবারো দুটি বক্স সামনে আসবে।

google translate
ধাপ ৩:- এবার বক্স অনুযায়ী আপনার ভাষা সিলেক্ট করে ট্রান্সলেশন করে ফেলবেন।
ধাপ ৪:- ওয়েবসাইটে আরো কিছু মজার ফিচার পাওয়া যায়। যেমন :- পুরো একটি ডকুমেন্টকে আপনি ট্রান্সলেট করতে চাইলে বামদিকের উপরের Documents বাটনে ক্লিক করে ডকুমেন্ট আপলোড করে দিন।

google translate
ধাপ ৫:- অনেক সময় অন্য ভাষার ব্লগ বা ওয়েবসাইট গুলো পড়তে আমাদের অসুবিধা হয়। তাই সেসব ওয়েবসাইট পড়ার জন্য বাম দিকের উপরের website বাটনে ক্লিক করে ওয়েবসাইট লিংক দিলেই উক্ত ওয়েবসাইট ট্রান্সলেট হয়ে যাবে।

৩) অ্যাপসের মাধ্যমে :-
আপনার কাছে যদি একটি অ্যান্ড্রয়েড ডিভাইস থাকে তাহলে আপনি গুগল ট্রান্সলেটরের এপ ডাউনলোড করে সহজেই ট্রান্সলেট করতে পারবেন। যার ফলে আপনাকে কোন ওয়েবসাইট কিংবা গুগলে সার্চ করার প্রয়োজন হবে না। সরাসরি এপে প্রবেশ করেই কাজ করতে পারবেন।

ধাপ ১:- আপনার মোবাইলের প্লে স্টোরে গিয়ে লিখতে হবে “google translator ”
ধাপ ২:- তারপরে আপনি গুগল ট্রান্সলেটর এপ দেখতে পাবেন সেটি ইনস্টর করবেন।
ধাপ ৩:- এপ ইনস্টলের পর এটে প্রবেশ করেই আপনি ট্রান্সলেশনের আগের ইন্টারফেসটি দেখতে পারবেন।

উপরোক্ত সকল পদ্ধতি ফলো করে আপনি গুগল ট্রান্সলেটর ব্যবহার করতে পারেন। তবে পিসির জন্য গুগল ট্রান্সলেটরের নিজস্ব কোন এপ নেই আপনি চাইলে তাদের এক্সটেনশন ডাউনলোড করে আপনার ব্রাউজারে ইনস্টল করতে পারেন।

কিভাবে গুগল ট্রান্সলেটর এপ ডাউনলোড করতে পারবেন? (How to download google translator app)

আপনি যদি মোবাইলে গুগল ট্রান্সলেটর ব্যবহার করতে চান তাহলে তাদের অ্যান্ড্রয়েড এপ ডাউনলোড করতে হবে। ডাউনলোড করার জন্য আপনি নিম্নক্তো কয়েকটি স্টেপ ফলো করলেই হবে।

ধাপ ১:- প্রথমেই আপনাকে আপনার জিমেইল দিয়ে গুগল প্লে স্টোরে সাইন আপ করতে হবে।
ধাপ ২:- তারপরে আপনি সার্চ বক্সে লিখবেন ” Google translator “। তারপর সার্চ দিবেন।
ধাপ ৩:- এবার সবার আগে আসা এপটির পাশে ” install ” বাটনে ক্লিক করে install করে নিবেন এপ। ( ইনস্টল করার আগে গুগল ট্রান্সলেটর অফিসিয়াল এগ কিনা যাচাই করবেন কারন প্লে স্টোরে গুগল ট্রান্সলেটর ছাড়াও আরো অনেক ট্রান্সলেটর এপস আছে)

google translate
এই ৩ টি সহজ স্টেপ ফলো করে আপনি সহজেই আপনার মোবাইলে গুগল ট্রান্সলেটর এপ ইনস্টল করতে পারেন।

গুগল ট্রান্সলেটরে ইংরেজি থেকে বাংলা অনুবাদ কিভাবে করবেন?

ইংরেজি আমাদের আন্তর্জাতিক ভাষা। সারা বিশ্বেই ইংরেজি ভাষার ব্যাপক একটি চাহিদা রয়েছে। কিন্তু আমাদের মধ্যে অনেকেই ইংরেজি ভাষা তেমন একটা পারদর্শী না৷ তাই যারা ইংরেজিতে পারদর্শী নয় তারা   গুগল ট্রান্সলেটর ব্যবহার করে খুব সহজেই ইংরেজি ভাষা বাংলায় অনুবাদ করতে পারে। ইংরেজি যেকোনো শব্দ বা কোন শব্দের প্রতিশব্দ এবং বিপরীত শব্দ সবই গুগল ট্রান্সলেটরে পাওয়া যায়।

আপনি প্রথমেই চলে যাবেন গুগল ট্রান্সলেটরের অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে। তারপরে আপনি দুটো বক্স দেখতে পাবেন যার প্রথমটিতে আপনি ইংরেজি ভাষা সিলেক্ট করবেন কারণ আপনি ইংরেজি ভাষা অনুবাদ করবেন। ২য় বক্সটিতে সিলেক্ট করবেন বাংলা ভাষা।

তারপর প্রথম বক্সে যাই লিখবেন তা অটোমেটক্যালি বাংলায় অনুবাদ হয়ে ২য় বক্সে দেখাবে। এভাবেই খুব সহজে গুগল ট্রান্সলেটর ব্যবহার করে ইংরেজি থেকে বাংলা অনুবাদ করা যায়।

গুগল ট্রান্সলেটে বাংলা টু ইংলিশ করার নিয়ম

ইংরেজিকে যেমন বাংলায় অনুবাদ করা জরুরি আমাদের জন্য ঠিক তেমনি বাংলাকেও ইংরেজিতে অনুবাদ করার প্রয়োজন হয় মাঝেমধ্যে। আমরা একটু আগেই দেখে এসেছি ইংরেজি থেকে বাংলা অনুবাদের নিয়ম। চলুন এখন দেখে নি কিভাবে গুগল ট্রান্সলেট বাংলা টু ইংলিশ অনুবাদ কিভাবে করবেন।

প্রথমেই গুগল ট্রান্সলেটরের অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে চলে যাবেন। প্রতিবারের মতো এইবারও দেখবেন দুটি বক্স। যেহেতু এবার আপনি বাংলা থেকে ইংরেজি অনুবাদ করবেন তাই আপনাকে প্রথম বক্সে বাংলা ভাষা সিলেক্ট করতে হবে তারপরে দ্বিতীয় বক্সে সিলেক্ট করবেন ইংরেজি ভাষা। এই সিলেকশনের পরে আপনি প্রথম বক্সে বাংলা যেটিই লিখবেন যেটি দ্বিতীয় বক্সে অটোমেটিক ইংরেজিতে অনুবাদ হয়ে যাবে।

অনেক সময় আমাদের ইংরেজিতে কোন বিষয় উপস্থাপন বা ব্যাখ্যা করার দরকার হয় কিন্তু আমরা তা সঠিক ভাবে পারি না সেক্ষেত্রে গুগল ট্রান্সলেটর ব্যবহার করলে আমাদের কাজ আরো অনেক সহজ হবে।

ইন্টারনেট ছাড়া গুগল ট্রান্সলেটর ব্যবহারের উপায়:-

গুগল ট্রান্সলেটর আমরা মূলত ব্যবহার করি যেকোন মূহুর্তে অল্প সময়ে যে-কোন ভাষা অনুবাদের জন্য। কিন্তু অনেকের চিন্তার বিষয় হলো আমাদের কাছে তো সব সময় ইন্টারনেট থাকবে না। যখন ইন্টারনেট থাকবেনা তখন আমরা কিভাবে অনুবাদ করব?

আপনাদের মতো এই বিষয়টি গবেষকেরাও চিন্তা করেছেন এবং ইউজারদের সর্বোচ্চ সুবিধা নিশ্চিত করতে গুগল ট্রান্সলেটরের অফলাইন ভার্সনও আছে অর্থাৎ অফলাইনে যখন আপনার ইন্টারনেট থাকবেনা তখনও আপনি গুগল ট্রান্সলেটর ব্যবহার করতে পারবেন।

আপনি অ্যান্ড্রোয়াইড মোবাইল ব্যাবহার করলে গুগল ট্রান্সলেটর এপ ইনস্টল করতে পারেন। যেটি দিয়ে ইন্টারনেট ছাড়াও কাজ করা যায়।

আবার আপনি চাইলে যে লেঙ্গুয়েজ ট্রান্সলেশন করতে চাচ্ছেন সেই লেঙ্গুয়েজ ফাইল ডাউনলোড করে রাখলে ইন্টারনেট ছাড়া ব্যবহার করতে পারবেন। আপনাকে এই লেঙ্গুয়েজ ফাইলটি আপনার ডিভাইস স্টোরেজ বা এক্সটার্নাল স্টোরেজে সেভ রাখতে হবে। এভাবে আপনার যে যে ভাষা দরকার সেসব ভাষার ফাইল ডাউনলোড করে নিলে আপনি ঐ সব ভাষায় ট্রান্সলেশন করতে পারবেন আপনার ইন্টারনেট না থাকা সত্ত্বেও।

গুগল ট্রান্সলেট বাংলা টু ইংলিশ নিয়ে শেষ কথা,

বর্তমান প্রযুক্তি আমাদের জীবনযাত্রাকে অনেক সহজ থেকে সহজতর করে তুলেছে। অনুবাদের মতো কঠিন কাজ আমরা এখন খুব সহজেই কয়েকটি ক্লিকের মাধ্যমে করে ফেলতে পারি।

অনেক অনেক পেইড ট্রান্সলেটর সফটওয়্যার ও আছে কিন্তু গুগল ট্রান্সলেটর সম্পূর্ণ ফ্রি একটি সফটওয়্যার। আশা করি আপনাদের গুগল ট্রান্সলেট কি,গুগল ট্রান্সলেট বাংলা টু ইংলিশ, গুগল ট্রান্সলেট কিভাবে ব্যবহার করার নিয়ম সম্পর্কে বিস্তারিত ধারণা দিতে পেরেছি।

2 thoughts on “গুগল ট্রান্সলেট বাংলা টু ইংলিশ করুন সহজেই”

Leave a Comment

Your email address will not be published.

Scroll to Top